পেঙ্গুইনদের সোয়েটার ও আলফ্রেড


প্রকাশিত:
১০ জুন ২০২২ ২১:০৭

আপডেট:
৫ জুলাই ২০২২ ০৩:২০

আলফ্রেড আলফি ডেট। অস্ট্রেলিয়ার প্রবীণতম ব্যক্তি ছিলেন তিনি। ২০১৬ সালের মে মাসে যখন তাঁর মৃত্যু হয়, বয়স হয়েছিল ১১১ বছর। কিন্তু শুধুমাত্র দেশের সবচেয়ে প্রবীণ ব্যক্তি হিসেবেই আলফ্রেডের একমাত্র পরিচিতি নয়। তাঁর আরও একটা পরিচয় রয়েছে। তিনি পেঙ্গুইনদের জন্য সোয়েটার বুনতেন।

পেঙ্গুইন ঠান্ডার দেশের প্রাণী। সোয়েটার এমনিতে তাদের দরকার লাগে না। কিন্তু কোনও কোনও ক্ষেত্রে ব্যতিক্রম রয়েছে। আহত অসুস্থ পেঙ্গুইনদের চিকিৎসায় দরকার পড়ে সোয়েটার বা জাম্পারের। সেগুলোই রোজ একটু একটু করে বুনতেন এই আলফ্রেড। এটাই ছিল তাঁর নেশা।

পেঙ্গুইন বিশেষজ্ঞরা মাঝেমধ্যেই এই প্রাণীদের জন্য সোয়েটার কিংবা জাম্পারের মতো পোশাক ডোনেট করার আবেদন জানিয়ে থাকেন। তেল পেঙ্গুইনদের জন্য খুবই ক্ষতিকর। তেলের সংস্পর্শে এলে এরা আহত হয়। তখন সোয়েটারের দরকার পড়ে। তেল লেগে থাকা সোয়েটারে পেঙ্গুইনরা যাতে ঠোঁট ছোঁয়াতে না পারে সেই কারণেই এমন পোশাক তখন তাদের পরিয়ে দেওয়া হয়। তেলে মুখ দিলে পেঙ্গুইনদের মৃত্যু অনিবার্য। তাই যতক্ষণ না ওই তেল পেঙ্গুইনদের পালক থেকে মুছে পরিষ্কার করে দেওয়া যাচ্ছে, ততক্ষণ সোয়েটার পরিয়ে রাখার দরকার হয়। পেঙ্গুইনদের জন্য ভালবেসে সেই সোয়েটারই বুনতেন আলফ্রেড। মৃত্যুর আগে পর্যন্ত এই কাজ তিনি করে গেছেন।

অস্ট্রেলিয়া আর নিউজিল্যান্ডের আশপাশে যত পেঙ্গুইন রয়েছে তারা কখনও না কখনও আলফ্রেডের বোনা সোয়েটার পরেছে।



বিষয়:


আপনার মূল্যবান মতামত দিন:


এই বিভাগের জনপ্রিয় খবর
Top